ব্রেকিং নিউজ :
মেহেরপুরে আমের মুকুলে ভরে গেছে গাছ দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় ১৬ জন করোনায় আক্রান্ত বেসরকারি স্বাস্থ্য সেবা প্রতিষ্ঠানের ফি নির্ধারণ করা হচ্ছে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী শিশুদের জন্য নিরাপদ পরিবেশ গড়ে তুলুন : রাষ্ট্রপতি অঙ্গদানকারী সারাহ ইসলামের মৃত্যু নাই : বিএসএমএমইউ উপাচার্য নদী ভাঙ্গনে বাস্তুচ্যুতদের টেকসই জীবিকার কর্মপরিকল্পনা প্রণয়নে কাজ করছে সরকার : পরিবেশমন্ত্রী স্মার্ট বাংলাদেশ গড়তে শিক্ষকদের ভূমিকা অপরিসীম : জাহিদ ফারুক হেলমেট ছুড়ে মারায় শান্তকে তিরস্কার করলো বিসিবি বিপদে পুলিশকে পাশে পেয়ে মানুষ যেন স্বস্তি বোধ করে তা নিশ্চিত করুন : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আবারও প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত করার আহ্বান এনামুল হক শামীমের
  • আপডেট টাইম : 06/12/2022 09:20 PM
  • 76 বার পঠিত

থাই প্রধানমন্ত্রী প্রায়ুত চ্যান-ও-চা মঙ্গলবার বলেছেন, তিনি ২০২৫ সাল পর্যন্ত শাসন করতে চান। তিনি প্রথমবারের মতো রাজ্যের আসন্ন সাধারণ নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ার পরিকল্পনা করছেন বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন।
থাইল্যান্ডে আগামী বছরের শুরুর দিকে নির্বাচন অনুষ্ঠানের কথা এবং মঙ্গলবার প্রধান বিরোধী পিহিউ থাই পার্টি তার প্রচারণার কিছু থিম চালু করেছে। খবর এএফপি’র।
প্রায়ুত ২০১৯ সালের একটি বিতর্কিত নির্বাচনে তার অবস্থানকে শক্তিশালী করার আগে ২০১৪ সালের একটি অভ্যুত্থানে সেনাপ্রধান হিসেবে ক্ষমতায় আসেন। কিন্তু কিছু পরই তার জনপ্রিয়তায় ধস নামে।
বিভিন্ন নির্বাচনে প্রায়ুতের প্রতিপক্ষ পিহিউ থাই উচ্চে রয়েছেন কিন্তু সামরিক শাসনের অধীনে তৈরি বর্তমান থাই সংবিধানের বিধিব্যবস্থা সেনাবাহিনী-সংশ্লিষ্ট দলগুলোর পক্ষে পরিচালিত।
সেপ্টেম্বরে, সাংবিধানিক আদালত প্রধানমন্ত্রী হিসেবে প্রায়ুতের আট বছরের মেয়াদ সীমা ২০২৫ সালে শেষ হবে বলে রায় দেয়। মঙ্গলবার তিনি একটি সাপ্তাহিক মন্ত্রিসভার বৈঠক ছেড়ে যাওয়ার সময় তাকে তার পরিকল্পনা সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করা হলে প্রায়ুত সাংবাদিকদের বলেন, ‘এই দুই বছরে আমি আমার যথাসাধ্য চেষ্টা করব এবং এর পরে যথার্থই জনসাধারণ আমার কাজ চালিয়ে যাওয়ার জন্য গ্রহণ করবে’।
প্রয়ুত বর্তমান ক্ষমতাসীন জোটের ও তার নেতৃত্বে থাকা পালং প্রচারথ পার্টি ত্যাগ করবেন। নির্বাচনের আগে একটি নতুন দলে যোগ দেবেন। দলটি তার জন্য বিশেষভাবে তৈরি করা হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।
মঙ্গলবার তিনি এ বিষয়ে গুজবের বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, ‘আমি এ বিষয়ে পরে কথা বলব।’
নির্বাচনের তারিখ নির্ধারণ হয়নি, তবে সংসদ তাড়াতাড়ি ভেঙে না দিলে, সংসদের মেয়াদ শেষ হবে মার্চ মাসে। মে মাসে ভোটের জন্য দিনক্ষণ নির্ধারন করতে হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...